| |

Ad

বিদ্যাময়ী সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনকালে-ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ২০১৯ সাল থেকে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে হবে

আপডেটঃ 7:11 am | February 02, 2018

স্টাফ রিপোর্টার : ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ডঃ গাজী হাসান কামাল বলেছেন, আগামী ২০১৯ সাল থেকে অনুষ্ঠিত এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে শুরু হবে। এ জন্য সকল ধরণের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হচ্ছে। এছাড়া চলতি বছরে নবম ও একাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের অধীনেই শুরু হচ্ছে। ঢাকা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত এসএসসি পরীক্ষা চলাকালে ১ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার সকালে শহরের বিদ্যাময়ী সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনকালে ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান উপরোক্ত কথা বলেন। এ সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের আলোকে তিনি আরো বলেন, নবগঠিত ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের কার্যক্রম এখনো পুরোপুরি শুরু হয়নি। ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের প্রতিনিধি হিসাবেই তিনি আপাতত কাজ করছেন। শিক্ষা বোর্ডের সার্ভার বসানোসহ জনবল চাহিদা পুরণে তিনি ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের কাছে মতামতসহ সুপারিশ ও চাহিদাপত্র প্রেরণ করেছেন। তিনি আশা করেন দ্রুততম সময়ে চাহিদাপত্র পুরণ হবে। এছাড়াও দ্রুততম সময়ের মধ্যে সার্ভারের মাধ্যমে সেবা পেতে (অস্থায়ী) বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা চলছে। পরে শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ডঃ গাজী হাসান কামাল শহরের মুকুল নিকেতন উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন। এ সময় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের ময়মনসিংহ অঞ্চলের উপ পরিচালক আব্দুল খালেক তার সাথে ছিলেন।
অপরদিকে ময়মনসিংহ বিভাগীয় কমিশনার জিএম সালেহ উদ্দিন, জেলা প্রশাসক খলিলুর রহমান শহরের জিলা স্কুল ও বিদ্যাময়ী সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় এসএসসি পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন। বিভাগীয় কমিশনার ও জেলা প্রশাসক কেন্দ্র পরিদর্শনকালে বলেন, কোন ধরণের অনিয়ম নেই। সম্পূর্ণ নকলমুক্ত পরিবেশে শান্তিপূর্ণভাবে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এ সময় বিদ্যাময়ী সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নাছিমা আক্তার সাথে ছিলেন।
উল্লেখ্য এবার ময়মনসিংহে ৮৪ পরীক্ষা কেন্দ্রের ১৫৯ ভেন্যুতে ৭০ হাজার ৭ শত ৩৭জন পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করে। এর মধ্যে এসএসসি ৪৪ কেন্দ্রে ১১৩ ভেন্যুতে ৫৪ হাজার ২শত ৭৮জন, দাখিল ২৩ কেন্দ্রের ২৭ ভেন্যুতে ১২ হাজার ৩শত ৩জন এবং ভোকেশনাল ১৭ কেন্দ্রের ১৯ ভেন্যুতে ৪ হাজার ১শত ৫৬ জন পরীক্ষার্থী অংশ গ্রহণ করে। স¤পূর্ণ নকলমুক্ত ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে পরীক্ষা গ্রহনে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সকল ধরণের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।